Tuesday, এপ্রিল ২৩, ২০২৪

অভিবাসন আইন নিয়ে আলোচনা করছে সুইডিশ সংসদীয় কমিটি

সুইডিশ সরকার তার অভিভাষণ আইন সংস্কার করতে যাচ্ছে, আর ক্ষেত্র বিশেষে সেটা করতে যাচ্ছে আরও কড়াকড়ি। এটা নিয়ে বর্তমানে আলোচনা করছে সুইডিশ সংসদের অভিভাষণ আইন সংক্রান্ত সংসদীয় কমিটি। বর্তমানে প্রচলিত অভিভাষণ আইন সংস্কার করে তা আরো কঠোর করবার জন্যে বিভিন্ন রাজনৈতিক দলগুলো প্রায় অভিন্ন মতামত প্রকাশ করেছে।

এই আলোচনাতে যে সমস্ত বিষয় প্রাধান্য পাবে তা হলো বর্তমানের ৩ বছরের সাময়িক রেসিডেন্স পারমিট প্রথা চালু থাকবে কিনা; পারিবারিক অভিবাসন আইন কেমন হবে সেটা নিয়ে আলোচনা এবং অভিভাষণ সংক্রান্ত অন্যান্য আইন।

সুইডিশ সংসদ রিক্সদগ সূত্রে জানা গেছে, বর্তমানে প্রচলিত অভিভাষণ আইনে যে কেউ রাজনৈতিক আশ্রয়ের আবেদন করতে পারেন। আর সেই আবেদন যদি প্রত্যাখ্যাত হয় তবে সেটার মেয়াদ ৪ বছর বলবদ থাকে। এই চার বছরের মধ্যে তিনি পুনরায় রাজনৈতিক আশ্রয়ের জন্য কোন আবেদন করতে পারবেন না। রাজনৈতিক আশ্রয়ের জন্য কোনো আবেদন প্রত্যাখ্যাত হবার পর যে কোন প্রার্থী চার বছর পর পুনরায় আবেদন করতে পারেন।

কিন্তু সেই ধারা বদলে ফেলতে চাচ্ছে বিভিন্ন রাজনৈতিক দল সমূহের অভিভাষণ সংক্রান্ত কমিটি। তাই তারা যৌথ ভাবে সংসদীয় কমিটির সভায় সেটা নিয়ে আলোচনা করছে। বর্তমানে প্রচলিত চার বছর থেকে সেটা ১০ বছরে নিয়ে যেতে চায় ডানপন্থী সুইডিশ ডেমোক্র্যাট দল। এমনকি তারা আর দ্বিতীয়বার রাজনৈতিক আশ্রয়ের আবেদন করবারও সুযোগ দিতে চায় না। সোশ্যাল ডেমোক্র্যাট আর মর্ডারেট পার্টি বলছে আইন কঠোর করতে। এমনকি লিবারেল পার্টিও। অন্যান্যরা বলছেন সেটা কমপক্ষে ছয় বছর করতে হবে। কিন্তু বামপন্থি ভ্যানস্টার পার্টি এবং মিলিও পার্টি মতান্তরে জানিয়েছে এটা তারপরও মানুষকে অন্ধকার জগতে নিয়ে যেতে বাধ্য করবে। সেন্টার পার্টি বলছে যে তারা বর্তমানের আইনের পরিবর্তন চায় না!

বিভিন্ন পার্টির অভিভাষণ আইন সংক্রান্ত কমিটির নেতৃবৃন্দ, বিশেষজ্ঞ আর সচিবদের চলতি সপ্তাহের আলোচনা শেষে সংসদীয় এই কমিটি তাদের মতামত জানাবে অভিভাষণ মন্ত্রী মরগ্যান জোহানসনের কাছে। তারপর সেটা আইন হিসেবে পাশ করবার জন্যে সংসদে পেশ করা হবে।

তথ্য : মেরুবার্তা

Related Posts

Next Post

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

I agree to the Terms & Conditions and Privacy Policy.

ফেসবুকে ইউরোপ বাংলা