Friday, এপ্রিল ১২, ২০২৪

বিশ্বে তৃতীয় ধনীর তালিকায় এশিয়ার আদানি

ইউরোপ বাংলা ডেস্ক : ভারতের আদানি গ্রুপের চেয়ারম্যান গৌতম আদানি সারাবিশ্বে ধনীদের তালিকায় তৃতীয় স্থানে উঠে এসেছেন। এনডিটিভি জানিয়েছে, ফরাসি ব্যবসায়ী বার্নার্ড আর্নল্টকে পেছনে ফেলে দিয়েছেন তিনি। গৌতম আদানির সম্পদ ১৩৭.৪ বিলিয়ন ডলারে পৌঁছেছে। ব্লুমবার্গ বিলিয়নিয়ার্স ইনডেক্স অনুসারে এ তথ্য পাওয়া গেছে।

ডাটা জানিয়েছে, ৬০ বছর বয়সী ভারতীয় এই শিল্পপতির মোট সম্পদের পরিমাণ ১৩ হাজার ৭০০ কোটি মার্কিন ডলার। টেসলা সিইও ইলন মাস্কের মোট সম্পদের পরিমাণ ২৫ হাজার ১০০ কোটি মার্কিন ডলার। আর অ্যামাজনের প্রতিষ্ঠাতা সিইও জেফ বেজোসের মোট সম্পদের পরিমাণ ১৫ হাজার ৩০০ কোটি মার্কিন ডলার। ভারতের বৃহত্তম বন্দর অপারেটর আদানি গ্রুপের সহ-প্রতিষ্ঠাতা গৌতম আদানি। এই সংস্থা দেশের সবচেয়ে বড় কয়লা ব্যবসায়ী বলেও জানা গেছে।

গৌতম আদানির সম্পদের পরিমাণ ১৩৭.৪ বিলিয়ন ডলার হয়েছে। ইলন মাস্কের মোট সম্পদ ২৫১ বিলিয়ন ডলার। দ্বিতীয় স্থানে থাকা জেফ বেজোসের মোট সম্পদ ১৫৩ বিলিয়ন ডলার। চতুর্থ স্থানে নেমে আসা বার্নার্ড আর্নল্টের মোট সম্পদ ১৩৬ বিলিয়ন ডলারে নেমে এসেছে। ভারতের মুকেশ আম্বানি এই তালিকার শীর্ষ ১০ জনের বাইরে রয়েছেন। তার সম্পদ ৯১.৯ বিলিয়ন ডলার।

গত সপ্তাহেই ভারতের প্রভাবশালী বেসরকারি টেলিভিশন চ্যানেল এনডিটিভি নেটওয়ার্কের ২৯ শতাংশ অংশীদারিত্ব অর্জনের কথা ঘোষণা করেছিল আদানি গ্রুপ। আরও ২৬ শতাংশ শেয়ার কেনার প্রস্তাব দেওয়া হবে। ওই শেয়ারের মোট মূল্য ৪৯৩ কোটি টাকা।

এনডিটিভি অবশ্য বলছে, সংস্থার শেয়ার বিক্রির যে খবর রটেছে তা ভিত্তিহীন। এনডিটিভির সহযোগী প্রতিষ্ঠাতা প্রণয় রায় ও রাধিকা রায়ের সঙ্গে এ নিয়ে কোনো আলোচনা হয়নি। সংস্থার কোনও শেয়ার বিক্রি হচ্ছে না। মালিকানায় কোনো বদল হচ্ছে না। কোম্পানির ৬০ শতাংশেরও বেশি শেয়ার রয়েছে রাধিকা ও প্রণয়ের হাতে। তা তাদের হাতেই থাকবে।

Related Posts

Next Post

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

I agree to the Terms & Conditions and Privacy Policy.

ফেসবুকে ইউরোপ বাংলা