Friday, এপ্রিল ১২, ২০২৪

মালয়েশিয়ায় কর্মী পাঠাতে সিন্ডিকেট বন্ধের দাবি

ইউরোপ বাংলা ডেস্ক : বিরোধী দল জাতীয় পার্টির (জাপা) সংসদ সদস্য ডা. রুস্তম আলী ফরাজী অভিযোগ করেছেন, বাংলাদেশ থেকে শ্রমিক নেওয়ার বিষয়ে মালয়েশিয়ার সঙ্গে সমঝোতা হলেও সিন্ডিকেটের কারণে প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রণালয় কোনও সিদ্ধান্ত নিতে পারছেন না। তিনি মালয়েশিয়ায় কর্মী পাঠানোর ক্ষেত্রে দ্রুত সিদ্ধান্ত নেওয়া এবং সকল এজেন্সির জন্য কর্মী পাঠানোর সুযোগ উন্মুক্ত করার দাবি জানান। রোববার (২৬ জুন) জাতীয় সংসদে অনির্ধারিত আলোচনায় অংশ নিয়ে তিনি এ দাবি জানান।

তিনি বলেন, করোনা ভাইরাসের কারণে সৃষ্ট অর্থনৈতিক মন্দার পরেও বাংলাদেশ থেকে শ্রমিক নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে মালয়েশিয়া। এ নিয়ে দেশটির সঙ্গে সমঝোতা স্মারক সই হয়েছে। সবকিছু হওয়ার পর এখানকার (বাংলাদেশ) মন্ত্রী বার বার ওখানে গেলেন, তাদের (মালয়েশিয়া) মানবসম্পদ মন্ত্রী বললেন, আপনারা সিদ্ধান্ত নিয়ে আমাদের জানান। আমরা নেবো।

বিরোধী দলীয় সংসদ সদস্য বলেন, আমাদের দেশ থেকে বার বার সফর করেও কোনও সিদ্ধান্ত নিতে পারছে না সিন্ডিকেটের কারণে। কয়েকটা বিশেষ গোষ্ঠীকে আমরা যদি সুযোগ দেই, তাহলে দাম বেড়ে যাবে। এখন মালয়েশিয়ায় যাওয়া যায় এক লাখ ২৫ হাজার টাকা থেকে দেড় লাখ টাকায়। কিন্তু পরে লাগবে তিন থেকে চার লাখ টাকা। আমাদের দেশের নিম্নবিত্ত ও সাধারণ মানুষ কীভাবে এ টাকা সংগ্রহ করবেন।

মন্ত্রীর দৃষ্টি আকর্ষণ করে তিনি বলেন, টালবাহানা না করে আপনারা সঠিক সিদ্ধান্ত নেন। সবাইকে ছেড়ে দেন, তাদের সঙ্গে আলোচনা করুন। অল্প টাকায় যাওয়ার ব্যবস্থা করুন। দেশের মানুষ এটা চায়। এ বিষয়ে প্রধানমন্ত্রীকে উদ্যোগ নেওয়ার অনুরোধ জানান তিনি।

সাধারণ ঘরের সন্তানরা মালয়েশিয়া গেলে রেমিট্যান্স আসবে বলে জানিয়ে তিনি বলেন, এতে অর্থমন্ত্রীর অর্থনৈতিক ভাণ্ডার সমৃদ্ধ হবে। দেশের মানুষের কর্মসংস্থান হবে, আয় বাড়বে এবং বেকারত্ব দূর হবে। তাই সাধারণ মানুষ যাতে মালয়েশিয়ায় যেতে পারে সে বিষয়ে দ্রুত ব্যবস্থা করতে হবে।

Related Posts

Next Post

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

I agree to the Terms & Conditions and Privacy Policy.

ফেসবুকে ইউরোপ বাংলা